ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২১ অক্টোবর ২০২১, ০২:১১ অপরাহ্ন
চিপস আর পানি খেয়েই কাটলো ঈদের সকাল
দৈনিক ডাক অনলাইন ডেস্ক

ঈদে নাড়ির টানে বাড়ি ফিরতে গিয়ে চরম ভোগান্তিতে পড়েছে সাধারণ মানুষ। যে সময়টা পরিবার পরিজন নিয়ে ঈদ করার কথা সে সময়টা কাটছে ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে। সড়কের কালিহাতী উপজেলার আনালিয়া বাড়ি থেকে বঙ্গবন্ধু সেতু পর্যন্ত ১০ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে এখনো তীব্র যানজট রয়েছে। এ সময় আশপাশে দোকান না পেয়ে ঘুরে ঘুরে চিপস বিক্রি করা লোকজনের কাছ থেকে চিপস আর পানি খেয়েই পার করেছেন ঈদের সকালের নাস্তা।

বুধবার (২১ জুলাই) সকালে মহাসড়কে এই চিত্র দেখা যায়।

জানা গেছে. গেলো কয়েকদিন ধরেই ঘরমুখো মানুষ ও অতিরিক্ত যানবাহনের কারণে ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এ ধারাবাহিকতা এখনো রয়ে গেছে। যানজটের কারণে চালক ও যাত্রীদের পোহাতে হচ্ছে চরম ভোগান্তি। বিশেষ করে নারী ও শিশুদের ভোগান্তি অনেক চরমে উঠেছে। নারীদের পয়ঃনিস্কাশন বড় সমস্যা হয়ে দাড়িয়েছে। এরই মধ্যে শত শত মানুষের ঈদ কাটছে রাস্তায় যানবাহনের মধ্যে।

আতাউর নামে এক যাত্রী আরটিভি নিউজকে জানান, পরিবার নিয়ে মঙ্গলবার (২০ জুলাই) বেলা ১২ টার দিকে আশুলিয়া থেকে রংপুরের উদ্দেশে রওনা দিয়েছি। এখনো বঙ্গবন্ধু সেতু পার হতে পারিনি। তাই শিশু সন্তানসহ পরিবারের সদস্যদের নিয়ে চিপস আর পানি খেয়ে ঈদের সকাল কাটালাম। কখন বাড়ি ফিরতে পারবো তাও বলতে পারছিনা।

রফিকুল ইসলাম নামে আরেক যাত্রী আরটিভি নিউজকে জানান, ৩ ঘন্টার রাস্তা ১৮ ঘন্টায় গোহালিয়া বাড়ি এসেছি। রাতেও খাইনি। বিস্কুট আর পানি খেয়ে ঈদের সকাল পার করলাম। বাড়ি ফেরা নিয়া অনিশ্চয়তায় রয়েছি।

এলেঙ্গা হাইওয়ে থানার ইনচার্জ ইয়াসির আরাফাত আরটিভি নিউজকে জানান, মহাসড়কে বঙ্গবন্ধু সেতু সংযোগ সড়কে গাড়ির চাপ রয়েছে। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে স্বাভাবিক হয়ে আসবে বলেও জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x