ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২৮ অক্টোবর ২০২১, ০৪:০১ পূর্বাহ্ন
নাসার পুরস্কার জিতল বুয়েটের শিক্ষার্থী দল
দৈনিকডাক অনলাইন ডেস্ক

করোনার ধাক্কা কাটিয়ে উন্নত দেশগুলো কীভাবে খাদ্যশস্য উৎপাদন ঠিক রাখবে সে উপায় দেখিয়ে নাসার পুরস্কার জিতল বাংলাদেশের একদল শিক্ষার্থী।

‘ইও ড্যাশবোর্ড হ্যাকাথন-২০২১’ প্রতিযোগিতার অধীনে করোনায় জার্মানি ও স্পেনের কৃষিখাতে ক্ষয়ক্ষতি ও উত্তরণের পথ দেখিয়ে এই স্বীকৃতি পায় টিম টেকনার্ডস। দক্ষিণ এশিয়ায় মাত্র দুটি দল এই প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হয়েছে। যার মধ্যে একটি বাংলাদেশের টিম টেকনার্ডস ও অন্যটি ভারতের।

মহামারি করোনার থাবায় বিপর্যস্ত সারাবিশ্ব। সংক্রমণ ও মৃত্যুর মিছিলের সঙ্গে টালমাটাল বিশ্ব অর্থনীতিও। নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে খাদ্যশস্য উৎপাদন ও বিতরণ ব্যবস্থায়। এ অবস্থায় সামাজিক, অর্থনৈতিক, পরিবেশ ও কৃষিক্ষেত্রে করোনাভাইরাসের প্রভাব বিশ্লেষণ ও মোকাবিলায় করণীয় খুঁজতে গত জুলাইয়ের শেষদিকে আয়োজন করা হয় ইও ড্যাশবোর্ড হ্যাকাথন-২০২১।

মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা-নাসা, ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সি ও জাপান এ্যারোস্পেস এক্সপ্লোরেশন এজেন্সির উদ্যোগে এই প্রতিযোগিতায় অংশ নেয় ১৩২টি দেশের চার হাজার ৩শ’ জনের বেশি প্রতিযোগী। যেখানে বুয়েটের শিক্ষার্থী সৈয়দ তৌসিফ ইসলামের নেতৃত্বে চার সদস্যের ‘টিম টেকনার্ডস’সহ বাংলাদেশ থেকে আরও কয়েকটি দল অংশ নেয়। এ দলে আরও ছিলেন- আনিকা রাহনুমা ও সাফাইদ হোসেন আরিব। নির্ধারিত সাতটি টপিকের মধ্যে কৃষিতে করোনাভাইরাসের প্রভাব বিষয় বাছাই করে টিম টেকনার্ডস। এরপর নাসা থেকে স্পেন ও জার্মানির স্যাটেলাইট তথ্য নিয়ে কাজ শুরু করেন তারা। সমস্যা চিহ্নিত ও সমাধানে সময় দেওয়া হয় মাত্র সাত দিন।

দলনেতা তৌসিফ জানান, তথ্য বিশ্লেষণে দেখা যায়, করোনাভাইরাসের ধাক্কায় স্পেনে বেকারত্বের হার পাঁচ শতাংশ বেড়েছে। অথচ লকডাউনের কারণে শ্রমিক না পাওয়ায় সময়মতো ফসল সংগ্রহ করতে পারেনি কৃষকরা। সময়মতো গন্তব্যে পৌঁছানো যায়নি খাদ্যশস্য। এতে নষ্ট হয়েছে গড়ে ১৫-২০শতাংশ ফসল। বেকার জনগোষ্ঠী কৃষিকাজ করলে ঠিক থাকবে খাদ্য উৎপাদন, চাপ কমবে অর্থনীতির উপর।

 

নানা ধাপ পেরিয়ে ছয়টি টিমকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। এরমধ্যে অনারেবল মেনশন ক্যাটাগরিতে রয়েছে বাংলাদেশের টিম টেকনার্ডস। করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে নাসার স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ সরাসরি দেখার সুযোগ পাবেন বিজয়ীরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x