ঢাকা, বুধবার ২০ অক্টোবর ২০২১, ০১:৩৩ অপরাহ্ন
দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ও উপসর্গে ২১০ জনের মৃত্যু
দৈনিক ডাক অনলাইন ডেস্ক

করোনাভাইরাসের ভয়াল রুপ ছড়িয়ে পড়েছে গ্রামেগঞ্জে। প্রতিনিয়ত আশঙ্কাজনক হারে বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্য। পরিস্থিতির ভয়াবহতায় উচ্চঝুঁকিতে খুলনা, রাজশাহী, কুষ্টিয়া, টাঙ্গাইল ও সাতক্ষীরা জেলা। এখন পর্যন্ত পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে গত একদিনে ২৫ জেলায় ২১০ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

যশোর: যশোরে গত একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ৯ জন এবং উপসর্গে আরো ৫ জনসহ মোট ১৪ জন মারা গেছেন। শুক্রবার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা সিভিল সার্জন অফিসের তথ্য কর্মকর্তা ডা. মো. রেহেনেওয়াজ।

কুষ্টিয়া: কুষ্টিয়ায় গত একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ১২ জন ও উপসর্গে ১০ জনসহ মোট ২২ জন মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা থেকে শুক্রবার সকাল ৮টার মধ্যে মারা যান তারা। একদিনে এটিই এখন পর্যন্ত জেলার সর্বোচ্চ মৃত্যুর ঘটনা। এর আগে একেদিনে যেখানে করোনায় আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছিল।

চট্টগ্রাম: করোনায় চট্টগ্রামে গত একদিনে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে ১০০০ জনের নমুনা পরীক্ষায় নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৭৮৩ জনের দেহে। এটিই চট্টগ্রামে এ পর্যন্ত একদিনে সর্বোচ্চ শনাক্ত। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত মোট ৭৫৪ জন মারা যান। শনাক্তদের মধ্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ল্যাবে ৭৬ জন, ফৌজদারহাট বিআইটিআইডি ল্যাবে ১৭২ জন, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ল্যাবে ১০৭ জন, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ইউনিভার্সিটি ল্যাবে ৭৫ জন, ইমপেরিয়াল হাসপাতাল ল্যাবে ৬৫ জন ও শেভরণ হাসপাতাল ল্যাবে ৪২ জনের শরীরে করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়।

খুলনা: গত একদিনে খুলনায় সর্বোচ্চ ২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে করোনা শনাক্ত হয়েছে ২৯৬ জনের। এ পর্যন্ত জেলায় করোনা শনাক্ত হয়েছে ১৮ হাজার ১৯৪ জনের। মারা গেছেন ৩৯২ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১২ হাজার ২৯১ জন।

মাগুরায়: মাগুরায় গত একদিনে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১ জন। একই সময়ে নতুন করে ৫৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ জেলায় মোট করোনা শনাক্ত হয়েছে ১ হাজার ৯৭৯ জনের। মোট মারা গেছেন ৩৫ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৩৪৯ জন।

বাগেরহাট: বাগেরহাটে গত একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ২ জনের মৃত্যু হয়েছে। নতুন মৃত্যু নিয়ে জেলায় মোট মৃত্যু ৯৮ জন। এই সময়ে জেলায় নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে ১৩৫ জনের। এ নিয়ে জেলায় মোট করোনা শনাক্ত হয়েছে ৪ হাজার ৪০৯ জনের।

নড়াইল: গত একিদেন নড়াইলে করোনায় মারা গেছেন ১ জন। একই সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছে ৬১ জন। এ নিয়ে জেলায় মোট করোনা শনাক্ত হয়েছে ৩ হাজার ৩১১ জনের। মোট মারা গেছেন ৫৮ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ২ হাজার ৩২৬ জন।

ঝিনাইদহ: করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত একদিনে ঝিনাইদহে ১০ জন মারা গেছে। একই সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছে ১৬২ জন। এ নিয়ে জেলায় মোট করোনা শনাক্ত হয়েছে ৫ হাজার ৪৮২ জন। মোট মারা গেছেন ১২৮ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৩ হাজার ৩৬৮ জন।

মেহেরপুর: করোনাবাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত একদিনে মেহেরপুরে ৫ জন মারা গেছেন। একই সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছে ৬৮ জন। এ নিয়ে জেলায় মোট শনাক্ত হয়েছে ২ হাজার ৪৩১ জন। আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৭৩ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৫৬৪ জন।

পঞ্চগড়: পঞ্চগড়ে গত একদিনে করোনায় আরো ১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় মোট মৃত্যু ২৯ জনের। ১৬০ জনের শরীরের নমুনা পরীক্ষায় আরও ৬৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়। এ পর্যন্ত মোট করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে এক হাজার ৪৪১ জন।

সাতক্ষীরা: সাতক্ষীরায় করোনা উপসর্গে ডেডিকেটেড মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গত একদিনে মারা গেছেন ৮ জন। একই সময়ে ২৮৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় নতুন করে ১১২ জন আক্রান্ত হয়েছেন। শনাক্তের হার ৩৯ দশমিক ২৯ শতাংশ।

রাজশাহী: গত একদিনে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ৩ জন এবং উপসর্গে ১৫ জনসহ মোট ১৮ জন মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা থেকে শুক্রবার সকাল ৯টার মধ্যে তাদের মৃত্যু হয়। শুক্রবার সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী।

টাঙ্গাইল: গত একদিনে জেলায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৪ জন ও উপসর্গে ১ জনসহ মোট ৫ জন মারা গেছেন। ৭১৭টি নমুনা পরীক্ষায় নতুন করে ২৯০ জনের করোনা শনাক্ত হয়। শনাক্তের হার ৪৪ দশমিক ৪৪ শতাংশ। এদিকে প্রতিদিন করোনা আক্রান্ত ও মৃত্যুর তালিকা দীর্ঘ হওয়ায় চিকিৎসকরা চিকিৎসাসেবা দিতে হিমশিম খাচ্ছে। হাসপাতালে জায়গা সংকট না হওয়ায় করোনা আক্রান্ত রোগীদের মেঝেতে চিকিৎসা দিতে হচ্ছে।

নোয়াখালী: নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ ও চাটখিল উপজেলায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে নোয়াখালী কোভিড ডেডিকেটেড হাসপাতালে একজন, হোম আইসোলেশনে দুজন ও ঢাকা নেওয়ার পথে আরও একজন মারা গেছেন। জেলায় মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৫২ জনে দাঁড়াল। এদিকে জেলায় নতুন করে আরও ১৪২ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ২৮ দশমিক ৬৮ শতাংশ।

ফরিদপুর: ফরিদপুরে গত একদিনে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে পিসিআর ল্যাবে ৩৭৬ নমুনা পরীক্ষায় নতুন করে আরও ২০৮ জনের করোনা শনাক্ত হয়। শনাক্তের হার ৫২ দশমিক ২২ শতাংশ। বর্তমানে ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ভর্তি রয়েছে ৩৪৩ জন করোনা রোগী।

বগুড়া: করোনায় বগুড়ায় গত একদিনে আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ১৬ জন। এদের মধ্যে বগুড়া মোহাম্মদ আলী হাসপাতালে ৬ জন, শহীদ জিয়াতে ৮ জন এবং এবং টি এম এস হাসপাতালে দুজন। মৃতরা সবাই বগুড়া, জয়পুরহাট নওঁগা জেলার বাসিন্দা। গত ২৪ ঘণ্টায় ৫৮২টি নমুনা পরীক্ষায় ১৭০ জনের করোনা শনাক্ত হয়। এ পর্যন্ত জেলায় করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা ৪৭২ জন।

ঠাকুরগাঁও: ঠাকুরগাঁওয়ে গত একদিনে করোনায় আরো ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। জেলায় ৩৭১টি নমুনা পরীক্ষায় নতুন করে ১৫১ জন শনাক্ত হয়েছে। বর্তমানে জেলায় করোনা শনাক্তের হার ৪০ দশমিক ৭০ শতাংশ।

বরিশাল: বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে গত একদিনে মারা গেছেন ৮ জন। এদের মধ্যে একজন করোনা পজিটিভ ছিল। একদিনে জেলায় মোট আক্রান্তে সংখ্যা ১৮১ জন। এর মধ্যে ৮৪ জনই সিটি করপোরেশন এলাকার বাসিন্দা। শনাক্তের হার ৫৩ দশমিক ১৫। বর্তমানে হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে ভর্তি হয়েছে ৬৮ জন। এর মধ্যে ১২ জন পজিটিভ। বর্তমানে এখানে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা ২৪৪ জন। এর মধ্যে পজিটিভ ৫৫ জন।

ময়মনসিংহ: গত একদিনে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ৬ জন ও উপসর্গে ৮ জনসহ মোট ১৪ জন মারা গেছেন। শুক্রবার সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মমেক হাসপাতালের করোনা ইউনিটের ফোকালপারসন ডা. মহিউদ্দিন খান মুন। বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা থেকে শুক্রবার সকাল ৮টার মধ্যে ২৪ ঘণ্টায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তারা। জেলায় ৬৬৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে ১৮৭ জনের শরীরে সংক্রমণ শনাক্ত হয়। সংক্রমণের হার ২৭ দশমিক ৯৫ শতাংশ।

সিলেট: সিলেটে গত একদিনে করোনাভাইরাসে আরো ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৪৪২ জন। তারা সবাই করোনা ডেডিকেটে হাসপাতালে মারা গেছেন।

নওগাঁ: গত একদিন নওগাঁয় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৩ জনের মৃত্যু খবর পাওয়া গেছে।

চুয়াডাঙ্গা: চুয়াডাঙ্গায় গত একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ৮ জন এবং উপসর্গে ৯ জনসহ মোট ১৭ জন মারা গেছেন। করোনায় নতুন মৃত্যু নিয়ে জেলায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ১৩৮ জনে। একই সময়ে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৩৩ জন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৪ হাজার ৩৯৯ জনে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. এএসএম ফাতেহ আকরাম।

বরগুনা: বরগুনায় নতুন শনাক্ত হয়েছে ৫৩ জন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৭৬২ জন। একদিনে ২ জনের মৃত্যু নিয়ে মোট মারা গেছেন ৩৩ জন। সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৩১৯ জন।

ঝালকাঠি: ঝালকাঠি জেলায় নতুন ৯৮ জন শনাক্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্ত হলেন ২ হাজার ৪৬৫ জন। একদিনে ২ জনের মৃত্যু নিয়ে মোট মারা গেছেন ৪১ জন। সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৪২২ জন।

পিরোজপুর: দ্বিতীয় সর্বোচ্চ শনাক্ত হয়েছে পিরোজপুর জেলায় ১৩৮ জন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্ত হয়েছেন ২ হাজার ৯০৩ জন। একদিনে করোনা আক্রান্ত ১ জনের মৃত্যু নিয়ে মোট মারা গেছেন ৪৪ জন। সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৭৬৫ জন। সূত্র বাংলাদেশ জার্নাল

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x