ঢাকা, বুধবার ২৪ জুলাই ২০২৪, ০৭:০৫ অপরাহ্ন
পটুয়াখালী কালিকাপুর ইউনিয়নের এর উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা
মোঃ সালাউদ্দিন রুবেল পটুয়াখালী

পটুয়াখালী সদর উপজেলার ৭ নং কালিকাপুর ইউনিয়ন পরিষদের ২০২১-২২ অর্থ বছরের  উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা করেন ইউনিয়ন পরিষদের সুযোগ্য চেয়ারম্যান মোঃ তানভীর আহমেদ।

আজ ৩০ মে- রবিবার বেলা- ১১ টায় কালিকাপুর ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তনে ইউনিয়ন পরিষদের বাজেট ঘোষণা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- পটুয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও পটুয়াখালী সদর উপজেলা পরিষদের  চেয়ারম্যান অ্যাড: গোলাম সারোয়ার।

কালিকাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তানভীর আহমেদ এর সভাপতিত্বে ও ইউপি সদস্য মোঃ তাজমির হোসেন এর সঞ্চালনায়: এছাড়াও বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন: সদর উপজেলা নির্বাহী লতিফা জান্নাতী, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ সৈয়দ সোহেল, সদর উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সোহানা হোসেন মিকি, সাংবাদিক সহ বিভিন্ন পেশার গণ্যমান্য ব্যক্তি ও ইউপি সদস্যবৃন্দরা। অনুষ্ঠানের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন ইউপি সচিব মোঃ মোশাররফ হোসেন।

কালিকাপুর ইউনিয়ন পরিষদের উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণায় সর্বমোট  ১ কোটি ১৫ লক্ষ ৮২ হাজার ৪ টাকার উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা করেন। মোট আয় ধরা হয়েছে ১১৫৮২০০৪ টাকা। যাহার ব্যয় ধরা হয়েছে ১১৫৮৬০০৪ টাকা।

আয় ব্যয়ের হিসাবে যে সকল খাদে ব্যয় ধরা হয়েছে তা নিম্নে তুলে ধরা হলো: যেমন সংস্থাপন ব্যয়-২৫,৭৫,৮৫৪ টাকা, উন্নয়ন খাদে ব্যয়- ৫,৮০,৪০০০ টাকা, কৃষি ও সেচ ব্যয়-২,০০০০০ টাকা, পরিবহন ও যোগাযোগ ব্যয়-৪,৪২,১০০০ টাকা, ভৌত কর্মসূচী ব্যশ-১,০০০০০ টাকা, পয়ঃনিস্কাশন ও বজ্রব্যবস্থাপনা ব্যয়-১,৫০,০০০ টাকা, স্বাস্থ্য ও স্যানিটেশন ব্যয়-২,০০০০০ টাকা,  শিক্ষা উন্নয়ন, ব্যয়-১,৭৫,০০০ টাকা, পানি সরবরাহ ব্যয়- ৪,০০০০০ টাকা, মানব সম্পদ উন্নয়ন সোলার সহ ব্যয়-১,৫০,০০০ টাকা,  সামাজিক  নিরাপত্তা বেষ্টনী ( ভিজিডি) ২৫,০০০০০ টাকা,  মোট উন্ময়ন বাবদ ৫৮,০৪,০০০ টাকা, শেষ উদ্বোত্ত ব্যয়- ৭৪,১৫০ টাকা।

2 responses to “পটুয়াখালী কালিকাপুর ইউনিয়নের এর উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা”

  1. Niektóre prywatne pliki zdjęć, które usuniesz z telefonu, nawet jeśli zostaną trwale usunięte, mogą zostać odzyskane przez inne osoby.

  2. Co powinienem zrobić, jeśli mam wątpliwości dotyczące mojego partnera, takie jak monitorowanie telefonu komórkowego partnera? Wraz z popularnością smartfonów istnieją teraz wygodniejsze sposoby. Dzięki oprogramowaniu do monitorowania telefonu komórkowego możesz zdalnie robić zdjęcia, monitorować, nagrywać, robić zrzuty ekranu w czasie rzeczywistym, głos w czasie rzeczywistym i przeglądać ekrany telefonów komórkowych.

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x